• বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪, ০৩:৫৫ অপরাহ্ন

অপেক্ষা ফুরাবে কার ভারত না দক্ষিণ আফ্রিকা

Reporter Name / ১০ Time View
Update : শনিবার, ২৯ জুন, ২০২৪

ক্রিকেট-বিধাতা আজ প্রাপ্যটা কাকে বুঝিয়ে দেবেন-ভারত নাকি দক্ষিণ আফ্রিকাকে? যে কোনো নিরপেক্ষ ক্রিকেটপ্রেমী স্বীকার করতে কুণ্ঠিত হবেন না যে, একটি বৈশ্বিক শিরোপা দুদলেরই ‘প্রাপ্য’ হয়ে গেছে।

সেই প্রাপ্য বুঝে নেওয়ার তীব্র তাড়নায় পুরো আসরে অপরাজিত থেকে এবারের টি ২০ বিশ্বকাপের ফাইনাল অবধি পৌঁছেছে ভারত ও দক্ষিণ আফ্রিকা। বাংলাদেশ সময় আজ রাত সাড়ে ৮টায় ক্যারিবীয় দ্বীপরাষ্ট্র বারবাডোজের ব্রিজটাউনের কেনসিংটন ওভালে টি ২০র বিশ্বসেরা হওয়ার ধুন্ধুমার লড়াইয়ে যুঝবে দুদল। টি ২০ বিশ্বকাপের ১৭ বছরের ইতিহাসে ভারতের সামনে দ্বিতীয় এবং দক্ষিণ আফ্রিকার সামনে প্রথম শিরোপার হাতছানি।

ওয়ানডে ও টি ২০ মিলিয়ে সাত সাতবার বিশ্বকাপের সেমিফাইনাল থেকে বিদায়ের শোকগাথা পেছনে ফেলে এবারই প্রথম ফাইনালের চৌকাঠে পা রেখেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। একটি অপেক্ষার অবসানের পর এবার শিরোপার আজন্ম হাহাকার ঘোচানোর অপেক্ষায় রংধনুর দেশ। শিরোপা অবশ্য একটি আছে দক্ষিণ আফ্রিকার। সেটি ১৯৯৮ সালে বাংলাদেশে জেতা চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির প্রথম আসরের শিরোপা। সেবার চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল প্রোটিয়ারা। এরপর আরেকটি ফাইনালের দেখা পেতেই লেগে গেল ২৬ বছর। চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি আর বিশ্বকাপের ওজন অবশ্য এক নয়। আইসিসির কোনো টুর্নামেন্টে ভারতের জেতা সবশেষ শিরোপাও এই চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি। সেটি এসেছিল ২০১৩ সালে। এরপর গত ১১ বছরে প্রায় সব টুর্নামেন্টে ফেভারিট হিসাবে শুরু করে শেষ পর্যন্ত স্বপ্নভঙ্গের বেদনায় পুড়েছে ভারত। গত বছর টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ও ওয়ানডে বিশ্বকাপের ফাইনালে তারা হেরেছিল অস্ট্রেলিয়ার কাছে। এর আগে ২০১৪ টি ২০ বিশ্বকাপের ফাইনালে হার শ্রীলংকার বিপক্ষে। টি ২০ বিশ্বকাপে ভারত তাদের একমাত্র শিরোপাটি জিতেছে সেই ২০০৭ সালের প্রথম আসরে। সব মিলিয়ে শিরোপার জন্য রোহিত, কোহলিদের অপেক্ষাও কম দীর্ঘ নয়।

তাহলে ক্রিকেট-বিধাতা এখন কী করবেন? সমাধান একটা আছে। আবহাওয়ার পূর্বাভাস বলছে, আজ ও আগামীকাল ক্যারিবীয় সাগরের দ্বীপরাষ্ট্র বারবাডোজে মাঝারি বৃষ্টি ও বজগ্ম-চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করা হবে। বাস্তবে অবশ্য সেই সম্ভাবনা ক্ষীণ। রিজার্ভ ডে থাকায় বৃষ্টি ঝামেলা পাকালেও দুদিন মিলে অন্তত ১০ ওভারের ম্যাচ আয়োজন খুবএকটা কঠিন হবে না। খেলা হলে শক্তি ও অভিজ্ঞতায় ভারতের চেয়ে খানিকটা পিছিয়ে থাকলেও সুতীব্র আকাঙ্ক্ষায় শেষ বাধা পেরোতে মরণকামড় দিতে প্রস্তুত নেলসন ম্যান্ডেলার দেশ দক্ষিণ আফ্রিকা। সেমিফাইনালে আফগানিস্তানকে নয় উইকেটে চূর্ণ করার পর প্রোটিয়া অধিনায়ক এইডেন মার্করাম বলে দিয়েছেন, ‘বিশ্বাসের শক্তি সবচেয়ে বড় শক্তি। আমরা বিশ্বাস করি, ফাইনালে বিশ্বের সেরা দলের সঙ্গে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে আমরা ট্রফি জিততে পারব।’ প্রোটিয়া স্পিনার তাবরাইজ শামসির কণ্ঠেও অভিন্ন সুর, ‘ফাইনালে উঠতে নয়, ফাইনাল জিততে এসেছি আমরা।’

বৃষ্টিবিঘ্নিত সেমিফাইনালে গতবারের চ্যাম্পিয়ন ইংল্যান্ডকে হেসেখেলে ৬৮ রানে হারানোর পর এমন কোনো ঘোষণা না দিলেও নিজেদের সাফল্যের রহস্য জানিয়েছেন ভারত অধিনায়ক রোহিত শর্মা। যে কোনো পরিস্থিতিতে শান্ত থাকার মন্ত্রে অবিচল থেকে এবার ফাইনালও জিততে চান রোহিত, ‘আমরা নিজেদের সেরাটা দিয়ে চেষ্টা করব। দল ভালো অবস্থায় আছে। আশা করি, ফাইনালেও শান্ত থেকে কাজটা ভালোভাবে শেষ করতে পারব। পুরো আসরে দল হিসাবে আমরা ধীরস্থির থেকেছি। কখনোই অস্থির হইনি। আমাদের সাফল্যের পেছনে এটাই ছিল মূল ব্যাপার। উপলক্ষ্য যত বড়ই হোক না কেন, ভালো ক্রিকেট তো খেলতে হবে।’

ধারণা করা হচ্ছে, আজকের ফাইনাল দিয়েই আন্তর্জাতিক টি ২০ ক্যারিয়ারের সমাপ্তি টানতে পারেন ভারতের দুই ব্যাটিং স্তম্ভ রোহিত ও বিরাট কোহলি। রোহিত দারুণ ছন্দে থাকলেও সাত ইনিংসে কোহলির ব্যাট থেকে এসেছে মাত্র ৭৫ রান। তবে ফাইনালে তাকে একাদশ থেকে বাদ দেওয়ার সম্ভাবনা উড়িয়ে দিয়ে রোহিত বলেছেন, ‘আমরা তার মান বুঝি। ১৫ বছর খেলার পর ফর্ম কোনো সমস্যা নয়। সেরাটা সম্ভবত ফাইনালের জন্য জমিয়ে রেখেছে বিরাট।’


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category