• বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪, ০৩:২২ অপরাহ্ন

সেনাবাহিনীর ক্ষমতা দখল নাইজারে অভ্যুত্থান ঘটিয়ে

Reporter Name / ৯৬ Time View
Update : বৃহস্পতিবার, ২৭ জুলাই, ২০২৩

আফ্রিকার দেশ- নাইজারে রক্তপাতহীন অভ্যুত্থানের মাধ্যমে ক্ষমতা দখল করেছে সেনাবাহিনী। একদল সৈন্য জাতীয় টেলিভিশনে ঘোষণা করেন, নাইজারের প্রেসিডেন্টকে তার পদ থেকে অপসারণ করা হয়েছে।

সৈন্যরা প্রেসিডেন্ট মোহামেদ বাজুমকে আটক করে দেশব্যাপী কারফিউ জারি করেছে।  পাশাপাশি সংবিধান বাতিল এবং সব প্রতিষ্ঠান ও সীমান্ত বন্ধ করে দিয়েছে। খবর বিবিসির।

কর্নেল আমাদু আবদরামান প্রস্তুত করা একটি বিবৃতিতে জানান, দেশের সীমান্তগুলো বন্ধ করা হয়েছে, দেশব্যাপী কারফিউ জারি করা হয়েছে। নিরাপত্তা পরিস্থিতির অবনতি এবং অপশাসন বেড়ে যাওয়ায় নাইজারের প্রতিরক্ষা ও নিরাপত্তা বাহিনী প্রেসিডেন্ট মোহামেদ বাজুমের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে। সে কারণেই, ক্ষমতা হস্তগত করতে বাধ্য হয়েছে সেনাবাহিনী।

এ ব্যাপারে কোনো বিদেশি রাষ্ট্রের পরামর্শের প্রয়োজন নেই- এমনটা জানান তিনি। এই ঘোষণার কয়েক ঘণ্টা আগেই নিজস্ব বাসভবন থেকে প্রেসিডেন্টকে বন্দি করা হয়।

পশ্চিম আফ্রিকায় ইসলামপন্থী উগ্রবাদীদের দমনে বাজুম ছিলেন পাশ্চাত্যের অন্যতম মিত্র। আর এ কারণে অবিলম্বে বাজুমের মুক্তির দাবি জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

এর আগে নাইজারের প্রেসিডেন্ট স্বীকার করেন যে প্রেসিডেন্ট গার্ড বাহিনীর সদস্যরা প্রেসিডেন্ট বাজুমের বিরুদ্ধে দৃশ্যত অভ্যুত্থানচেষ্টা চালাচ্ছে।

এই অভ্যুত্থানের নিন্দা করেছেন জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্টোনিও গুতেরেস ও মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিংকেন।

২০২০ সাল থেকে প্রতিবেশী মালি এবং বুরকিনা ফাসোতে অন্তত চারবার সামরিক অভ্যুত্থান ঘটেছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category